আন্তর্জাতিক 

প্রণব মুখার্জির শারীরিক অবস্থার অবনতি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক;
ভারতের সাবেক রাষ্ট্রপতি এবং বর্ষিয়ান কংগ্রেস নেতা প্রণব মুখার্জির শারীরিক অবস্থা জটিল আকার ধারণ করেছে। দিল্লির একটি সামরিক হাসপাতালে তাকে ভেন্টিলেশন সাপোর্টে রাখা হয়েছে। মস্তিস্কে রক্তজমাটের পাশাপাশি করোনাভাইরাসেও আক্রান্ত হয়েছেন সাবেক এ রাষ্ট্রপ্রধান।
ভারতীয় গণমাধ্যম এনডিটিভি জানায়, সোমবার নয়াদিল্লির আর্মি রিসার্চ অ্যান্ড রেফারেল হাসপাতালে প্রণব মুখার্জির মস্তিস্কে অস্ত্রোপচার করা হয়। সফলভাবে সেই অস্ত্রোপচার সম্পন্ন হয়। আঘাতের কারণে তার মস্তিস্কে রক্তজমাট বেঁধেছিল। অস্ত্রোপচারে তা অপসারণ করা হয়। এরপর তার শারীরিক অবস্থা সংকটাপন্ন হয়ে পড়ে। তাকে ভেন্টিলেশন সাপোর্ট দেয়া হয়েছে।
৮৪ বছর বয়স্ক প্রণব কোভিড ১৯-এ আক্রান্ত। সোমবার সকালে এক টুইটে নিজেই বিষয়টি নিশ্চিত করেন। গত এক সপ্তাহে কেউ তার সংস্পর্শে এলে তাকে সেলফ আইসোলেশনে থাকতে ও করোনা টেস্ট করাতে পরামর্শ দিয়েছেন তিনি।
প্রণব মুখার্জীর এই টুইটের পর পরই দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল লেখেন– সাবধানে থাকবেন স্যার। আমরা আপনার দ্রæত আরোগ্য ও সুস্বাস্থ্য কামনা করছি।
ভারতীয় গণমাধ্যম আনন্দবাজার জানায়, আগের দিন রাতে টয়লেটে পড়ে গিয়েছিলেন প্রণব মুখার্জি। তার মাথায় আঘাত লেগেছিল। মাথা ফাটেনি, কিন্তু স্নায়ুর কিছু সমস্যা দেখা দেয়ায় তাকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়।
পরীক্ষা করে দেখা যায়, তার মাথায় রক্তজমাট বেঁধে আছে। জরুরি ভিত্তিতে অস্ত্রোপচার করা দরকার। তার জন্য প্রয়োজনীয় পরীক্ষা-নিরীক্ষা করতে গিয়েই ধরা পড়ে, তার কোভিডও হয়েছে। এ দিনই অস্ত্রোপচার করা হয় প্রণবের। তাকে ভেন্টিলেশনে দিয়ে পর্যবেক্ষণে রেখেছেন চিকিৎসকরা।

Please follow and like us:

Related posts

Leave a Comment

করোনাভাইরাস সতর্কতায়

বারে বারে হাত ধুই, হাঁচি কাশিতে রুমাল/টিস্যু ব্যবহার করি, ময়ালা হাতে হাত মুখ স্পর্শ করা থেকে বিরত থাকি। সরকারী নির্দেশনা এবং স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলি, ঘরে থাকি।